Chattogram24

Edit Template
Search
Close this search box.
শনিবার, ২রা মার্চ ২০২৪

বর্ণাঢ্য আনুষ্ঠানিকতায় উ.সুন্দরা মহাথের’র জাতীয় অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া সম্পন্ন

Author picture
স্টাফ রিপোর্টার

কনক বড়ুয়া:

হাজারো ভক্তের শ্রদ্ধা নিবেদনের মধ্য দিয়ে কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার বেনুবন বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ প্রয়াত ভদন্ত উ-সুন্দরা মহাথেরো’র জাতীয় অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে । এ উপলক্ষে নানা ধর্মীয় অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

বৃহস্পতিবার (৩০ নভেম্বর) সকালে বিশ্বশান্তি কামনায় পবিত্র ত্রিপিটক থেকে মঙ্গলবানী পাঠের মধ্য দিয়ে অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠান শুরু হয়। পরে শুক্রবার (১ ডিসেম্বর) মহাসঙ্ঘদান, পিণ্ডদান, পঞ্চশীল প্রার্থনা আলোচনা সভা ও শেষে ডুমাবাজির মধ্য দিয়ে প্রয়াত উ. সুন্দরা মহাথেরোর দেহ সৎকার করা হয়।

এছাড়াও অনুষ্ঠানমালায় ছিল জাতীয় ও ধর্মীয় পতাকা উত্তোলন, প্রয়াত উ. সুন্দরা মহাথের মহোদয়ের মরদেহ নিয়ে শুভযাত্রা, স্বেচ্ছাসেবকদের ব্যাচ প্রদান অনুষ্ঠান, বিশ্ব শান্তি কামনায় মঙ্গলপ্রদীপ প্রজ্জলন, বুদ্ধ কীর্তন, আলংনৃত্য, অতিথি আপ্যায়ন, প্রাণী অবমুক্তকরণ, উ.সুন্দরা স্মারকের মোড়ক উন্মোচন, ভিক্ষু সংঘের সদ্ধর্ম দেশনা ও অতিথিদের বক্তব্য, প্রয়াত উ. সুন্দরা মহাথের মহোদয়ের শেষ শ্রদ্ধা ও অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া সম্পাদন।

পুরো অনুষ্ঠানে বিভিন্ন জায়গা থেকে হাজার হাজার ধর্মপ্রাণ নরনারী অংশ নেন। এ ছাড়া কক্সবাজার, বান্দরবান, চট্টগ্রামসহ দেশের সর্বজেলা থেকে বিভিন্ন বৌদ্ধ মন্দিরের প্রাজ্ঞ পন্ডিত বৌদ্ধ ভিক্ষুরা এতে অংশ নেন। ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়ে মুক্তিযোদ্ধা স্কুল মাঠ ও বিহার প্রাঙ্গণে ধর্মীয় নানা আনুষ্ঠানিকতায় চন্দন কাঠের আগুনে দাহক্রিয়া সম্পন্ন করেন হাজার হাজার ভক্ত ও দায়ক-দায়িকারা।

প্রায়ত উ.সুন্দরা মহাথের’র দেহ শ্রদ্ধা নিবেদনের মাধ্যমে শবদাহ অনুষ্ঠানস্থলে আলং নৃত্যের মাধ্যমে নিয়ে আসা হয়। এদিকে এই জাতীয় অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠানকে ঘিরে মুক্তিযোদ্ধা স্কুলের সাসনে বিলের বিশাল জায়গা জুড়ে বসেছে সম্প্রীতির মেলা। অনুষ্ঠানস্থলে বাঁশ, কাঠ, ও রঙ্গিন কাগজের কারুকার্যে তৈরী হয়েছে বিশাল আলং। এতে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের প্রায় ১০টিরও বেশি দল আলং নৃত্য পরিবেশন করেন। সন্ধ্যায় দাহক্রিয়ার মাধ্যমে বিশাল এ আয়োজনের সমাপ্তি হয়।

উক্ত অনুষ্ঠানে মাননীয় উপ-সংঘরাজ ভান্তে সহ দেশ ও বিদেশ থেকে আগত পুজনীয় মহান ভিক্ষুসংঘ, মাননীয় মন্ত্রী, এমপি, ডাক্তার, আইনজীবী,  বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, বৌদ্ধ নেতৃবৃন্দ ও  প্রসাশনের উচ্চপদস্থ কমাকর্তাবৃন্দ সহ সর্বস্থরের জনসাধারণ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, এই বছর (১৯ জুলাই) উখিয়া উপজেলার মরিচ্যা বেণুবন বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ উ: সুন্দরা মহাথের পরলোক গমন করেন। বৌদ্ধ ধর্মীয় প্রক্রিয়ায় এতদিন বৌদ্ধ ভিক্ষুর দেহ বৌদ্ধ মন্দিরে কাচের কফিনে সংরক্ষণ করে রাখা ছিল।